১৬১ বছর পর প্রমাণিত ডারউইনের তত্ত্ব

0

এক ইংলিশ নৃবিজ্ঞানী জানিয়েছেন, চালর্স ডারউইনের প্রজাতি ও উপ-প্রজাতি বিষয়ক একটি তত্ত্ব তিনি প্রমান করতে সক্ষম হয়েছে। বিবর্তন বিষয়ক তত্ত্বটি দেওয়া হয় ১৬১ বছর আগে।

পপুলার মেকানিকসের এক প্রতিবেদনে জানা যায়, গবেষণাটি প্রজাতি থেকে উপপ্রজাতি ও তারপর নতুন প্রজাতির বিবর্তনের ধারাটি বুঝতে বিজ্ঞানীদের সাহায্য করবে।

তত্ত্বটি প্রমান করতে ক্যামব্রিজ ইউনিভার্সিটির ডক্টরাল পর্যায়ের শিক্ষার্থী লরা ভ্যান হলস্টাইন এক শতাব্দীর বেশি সময় ধরে ন্যাচারালিস্টদের সংগ্রহ করা তথ্য বিশ্লেষণ করেন।

তিনি এক বিবৃতিতে জানান, উপ-প্রজাতির এই উদ্ভব নির্ভর করে ভূমি, বায়ু ও সাগরের ওপর। উপ-প্রজাতির স্থলজ ও অস্থলজ আবাসের গঠন, সংখ্যা ও বৈচিত্র্যেকে কেন্দ্র করে প্রজাতি আবির্ভূত হয়।

গ্যালাপাগাস দ্বীপপুঞ্জে থাকাকালে মূলত এই বিষয়ে মনোনিবেশ করেন ডারউইন। তার দেওয়া উদাহরণের মধ্যে বন্যবিড়াল উল্লেখযোগ্য। তিনি দেখান গৃহপালিত বিড়ালের পূর্বপুরুষ হিসেবে আফ্রিকান ও ইউরোপীয়ান বন্য বিড়াল কীভাবে সম্পর্কিত। যেখানে সব প্রজাতির উপ-প্রজাতি রয়েছে। যারা আবার পালাস ও ফিশিং ক্যাটের থেকে একদম আলাদা।

নতুন গবেষণার গুরুত্বের দিক হলো- মানব সৃষ্ট ও পরিবেশগত কারণে অনেক প্রজাতি ক্ষতির মুখে পড়লেও তাদের কীভাবে রক্ষা করা যাবে তাতে মনোযোগ দিতে পারবেন অ্যাক্টিভিস্টরা। বোঝা গেছে, প্রাণীদের উপ-প্রজাতিকে উপেক্ষা করা হলেও তারাই বিবর্তনের গতিতে দীর্ঘমেয়াদী ভূমিকা রাখে।

You might also like

Leave A Reply

Your email address will not be published.

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com